Dhaka , Thursday, 13 June 2024
নিবন্ধন নাম্বারঃ ১১০, সিরিয়াল নাম্বারঃ ১৫৪, কোড নাম্বারঃ ৯২
শিরোনাম ::
জনপ্রিয়তা ঈর্ষান্বিত হয়ে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী রফিক আমার নামে মিথ্যাচার চালাচ্ছে- আবুল বাশার  বাদশা।। নিখোঁজের দুদিন পর মাদরাসা ছাত্রের মরদেহ মিলল ঘাটলার নিচে।। ঝালকাঠিতে হত্যা মামলায় সাবেক ইউপি চেয়ারম্যানসহ ৪ জনের যাবজ্জীবন।। সুন্দরগঞ্জে পশুর হাট নিয়ে পুলিশ-জনতা সংঘর্ষে ৩ রাউন্ড গুলি বিনিময়- পুলিশসহ আহত ১০।। নোয়াখালীতে পানিতে ডুবে দুই বোনের মৃত্যু।। পাবনায় শ্যালো ইঞ্জিনচালিত নছিমন নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ২ জন নিহত আহত -৭ জন।। রূপগঞ্জ কাঞ্চন পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী রফিক সমর্থকদের উপর হামলা।। ৩৬ দিন পর যুবকের লাশ উত্তোলন- ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের।। শিবচরে আগুনে ১৩ গরু মারা গেছে।। দাবি হামার একটাই ঠাকুরগাঁওয়ে বিমানবন্দর ও মেডিকেল কলেজ চাই।। ঈদ উপলক্ষ্যে হিলিতে প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসাবে ভিজিএফের চাল বিতারণ।। প্রভাবশালীরা সরকারী হাটের জায়গা দখল করে দোকান ঘর নির্মাণ-হাট বসছে মহাসড়কের দুই পার্শ্বে।। রাজমিস্ত্রী ছাড়াই পাবনার তাওহীদ তৈরি করেছেন দৃষ্টিনন্দন দোতলা বাড়ি।। সদরপুরে রাসেল ভাইপার আতঙ্ক- ছয় মাসে ৫ জনের মৃত্যু।। চাঁদাবাজিতে অতিষ্ঠ কদমতলী – ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে নারীর বিষপান।। রাজাপুরে মাঠ দিবস ও কারিগরী আলোচনা অনুষ্ঠিত।। ঝালকাঠিতে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে জমি ও গৃহ হস্তান্তর।। রূপগঞ্জে ভুল চিকিৎসায় প্রসুতির মৃত্যু।। রূপগঞ্জ উপজেলা পরিষদের উন্মুক্ত বাজেট ঘোষণা।। তিতাসে পরীক্ষার ফলাফল ঘোষণা উপলক্ষ্যে মা সমাবেশ অনুষ্ঠিত।। তিতাসে আইনশৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভা অনুষ্ঠিত।। বিশ্বকাপ উন্মাদনায় মেতেছে ওরাও।। রূপগঞ্জে মেয়র প্রার্থীর পোষ্টার ছিঁড়ে ফেলার অভিযোগ।। মোরেলগঞ্জের ৫০ পরিবার পেলো মাথাগোঁজার ঠাই।। রামগঞ্জের লামনগর সমবায় সমিতির অফিসে দুধর্ষ চুরি- ৫ লক্ষাধিক টাকা লুটে নিয়েছে চোরেরা।। প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক সদরপুরে জমি ও গৃহ হস্তান্তর কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন।। শরীয়তপুরের জাজিরাকে ভূমিহীন ও গৃহহীনমুক্ত ঘোষনা।। ঠাকুরগাঁয়ে ১শ বোতল ফেনসিডিল সহ গ্রেফতার শিশু।। পাবনায় ফের কবরস্থান থেকে কঙ্কাল চুরি হিড়িক।। গাজীপুরে অবৈধ গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন- ৪ জনকে টাকা জরিমানা।।

সম্পত্তি লিখে নিয়ে মাকে মারধর করে বাড়ি থেকে বের করে দেওয়ার অভিযোগ সন্তানের বিরুদ্ধে।।

  • Reporter Name
  • আপডেট সময় : 02:32:54 pm, Friday, 7 June 2024
  • 9 বার পড়া হয়েছে

সম্পত্তি লিখে নিয়ে মাকে মারধর করে বাড়ি থেকে বের করে দেওয়ার অভিযোগ সন্তানের বিরুদ্ধে।।

মাদারীপুর জেলা প্রতিনিধি।।

  

   
মাদারীপুরের ডাসারে সৈয়দা শান্তি নাহার -৭০- নামে এক বৃদ্ধা মায়ের সম্পত্তি ও ব্যাংকে থাকা অর্থ হাতিয়ে নিয়ে পরে তাকে মারধর করে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছে সন্তান। ওই বৃদ্ধা মায়ের সম্পত্তি ও ব্যাংকে থাকা অর্থ হাতিয়ে নিয়ে পরে তাকে মারধর করে বাড়ি থেকে বের করে দেয়াড় এমন অভিযোগ উঠেছে তার বড় ছেলের বিরুদ্ধে। এই ঘটনার পরে বৃদ্ধা তার ছেলেকে আসামি করে আদালতে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

  
শুক্রবার -৭ জুন- সরজমিনে গিয়ে জানাযায়- ডাসার উপজেলার পূর্ব ডাসার গ্রামের শান্তি নাহার নামে এক বৃদ্ধা নিজের বড় ছেলে সৈয়দ জানে আলম স্বপনের কাছে অসুস্থ কারণে ছিলেন। সেখানে অসুস্থ মাকে দেখাশোনা করার কথা বলে তার কাছে বেশ কিছুদিন রাখেছিলেন। এসময় মায়ের নামে ছিল মাদারীপুর শহরের একটি বাড়ির জমি সেই জমি স্বপন তার নামে লিখে নিয়েছেন । এছাড়াও তার বড় সন্তান সৈয়দ জানে আলম তার জমি বিক্রির ব্যাংকে থাকা টাকা আত্মসাৎ করছেন।

  
বৃদ্ধা মায়ের অভিযোগ- বড় সন্তান ও তার স্ত্রী সম্পত্তি ও টাকা পয়সা হাতিয়ে নিওয়ার পরে তিনদিন খাবার না দিয়ে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছেন। তিনি আরো অভিযোগ করেন- একাধিকবার তাকে নির্যাতন করা হয়।এই ঘটনায় বৃদ্ধা মাদারীপুর চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা করেছেন। তার সাথে প্রতারণা করে সম্পত্তি ও টাকা পয়সা হাতিয়ে নেয় এ মামলায় অভিযোগ করেন । বড় সন্তান সৈয়দ জানে আলম স্বপন ও তার স্ত্রী কাজী শিবলী আক্তার রুমা এবং তার নাতনী সৈয়দ রাহুল আলম শুভকে মামলায় আসামি করা হয়েছে । মামলার অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে- সৈয়দা শান্তি নাহার নামে ওই বৃদ্ধার স্বামী বছর তিনেক আগে মারা গেলে ওয়ারিশ হিসেবে রেখে যান -তিন সন্তান এক মেয়ে। স্বামীর মৃত্যুর পরে চিকিৎসার জন্য মাদারীপুর শহরে বৃদ্ধা তার বড় ছেলের বাড়িতে থাকেন। নগদ টাকার প্রয়োজন থাকার কারণে ৫২ লক্ষ টাকার জমি বিক্রি করে দেন। সেই টাকা গচ্ছিত রেখেছেন বড় সন্তানের কাছে।

  

কিছুদিন পরে সে অসুস্থবোধ করলে চিকিৎসা করা হবে বলে তার বড় সন্তান স্বপন ও তার স্ত্রী রুমা এবং তার সন্তান শুভ অজ্ঞাত একটি বিল্ডিং ঘরে নিয়ে গিয়ে তাকে হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করতে হবে জানিয়ে কিছু প্রয়োজনীয় কিছু কাগজ পত্র সই করিয়ে নেয়। এর কিছুদিন পরে সে জানতে পারেন তার বাড়ির তিন শতাংশ জমি হেবা দলিলের মাধ্যমে বড় সন্তান জানে আলম নিজের নামে লিখে নিয়েছেন। এছাড়াও বিভিন্ন স্থানের তার একাধিক সম্পত্তি প্রতারণার মাধ্যমে অন্যদের নামে দলিল করিয়ে নেন। বিষয়টি জানার পরে তার বড় ছেলের কাছে জমি বিক্রির টাকাসহ মোট ৭১ লক্ষ টাকা এবং তিন শতাংশ জমি ফেরত চাওয়ার পরে তিনি টাকা ও জমি ফেরত দিতে অস্বীকার করেন। একপর্যায় মামলা করা হুমকি দিলে এসময়ে সৈয়দ জানে আলম স্বপন বৃদ্ধা শান্তি নাহারকে এলোপাতাড়ি কিল ঘুসি ও লাথি মেরে পরে ঘর থেকে বের করে দেয়। ঘটনার পরে তার মেজ ছেলে সৈয়দ মুক্তি তার মাকে উদ্ধার করে চিকিৎসা করেন।

  
ভুক্তভোগী সৈয়দা শান্তি নাহার বলেন, প্রতারণার মাধ্যমে আমার ছেরে সৈয়দ জানে আলম ও তার স্ত্রী কাজী শিবলী আক্তার রুমা জায়গাজমি অর্থ সম্পদ আত্মাসাৎ করে, আমাকে মারধর করে ঘর থেকে বের করে দিয়েছে। এমন কুলাঙ্গার সন্তান আমার দরকার নেই। আমি এর সুষ্ঠু বিচার সরকারের কাছে চাই। নির্যাতেনর
শিকার বৃদ্ধার দেবর মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দ আলমগীরর জানান- আমার ভাতিজা স্বপন আমার সামনে ওর মাকে মারধর করেছে। এমন কুলাঙ্গার সন্তান আমি জীবনে দেখিনি। ওর দৃষ্টান্তমূলক বিচার হওয়ার উচিত। যাতে কেউ মায়ের গায়ে হাত তুলতে না পারে।

  
এ বিষয়ে অভিযুক্ত সৈয়দ জানে আলম স্বপন বলেন- এ ঘটনা সম্পূর্ণ মিথ্যা ও বানোনো বানোয়াট। আমার মা মিথ্যা কথা বলছে। জমি বিক্রি করে তার টাকা তাকে দেওয়া হয়েছে। সে তার টাকা তুলে সে চিকিৎসার জন্য খরচ করছে। তার জমির বিক্রির বাকী টাকা তার একাউন্টেই আছে। ডাসার থানার ওসি শফিকুল ইসলাম জানান, বৃদ্ধা মাকে পুলিশের পক্ষ থেকে আইনি সহায়তা দেওয়া হবে। এব্যপারে ডাসারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার কানিজ আফরোজ বলেন- ঘটনাটি খুবই দুঃখজনক। মাকে তার সন্তান মারধর করবে এটা সভ্য সমাজে মেনে নেওয়ার মত নয়। অভিযুক্ত সন্তানের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ দেয়া হবে।

আপনার মতামত লিখুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল ও অন্যান্য তথ্য সঞ্চয় করে রাখুন

জনপ্রিয় সংবাদ

রূপগঞ্জে বস্ত্র ও পাটমন্ত্রীর নির্দেশে নির্মিত চার সড়কের উদ্বোধন।।

পেকুয়ায় বেড়িবাঁধ ভেঙে লোকালয়ে প্লাবিত,২ শত পরিবার পানিবন্দী।।

জনপ্রিয়তা ঈর্ষান্বিত হয়ে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী রফিক আমার নামে মিথ্যাচার চালাচ্ছে- আবুল বাশার  বাদশা।।

সম্পত্তি লিখে নিয়ে মাকে মারধর করে বাড়ি থেকে বের করে দেওয়ার অভিযোগ সন্তানের বিরুদ্ধে।।

আপডেট সময় : 02:32:54 pm, Friday, 7 June 2024

মাদারীপুর জেলা প্রতিনিধি।।

  

   
মাদারীপুরের ডাসারে সৈয়দা শান্তি নাহার -৭০- নামে এক বৃদ্ধা মায়ের সম্পত্তি ও ব্যাংকে থাকা অর্থ হাতিয়ে নিয়ে পরে তাকে মারধর করে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছে সন্তান। ওই বৃদ্ধা মায়ের সম্পত্তি ও ব্যাংকে থাকা অর্থ হাতিয়ে নিয়ে পরে তাকে মারধর করে বাড়ি থেকে বের করে দেয়াড় এমন অভিযোগ উঠেছে তার বড় ছেলের বিরুদ্ধে। এই ঘটনার পরে বৃদ্ধা তার ছেলেকে আসামি করে আদালতে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

  
শুক্রবার -৭ জুন- সরজমিনে গিয়ে জানাযায়- ডাসার উপজেলার পূর্ব ডাসার গ্রামের শান্তি নাহার নামে এক বৃদ্ধা নিজের বড় ছেলে সৈয়দ জানে আলম স্বপনের কাছে অসুস্থ কারণে ছিলেন। সেখানে অসুস্থ মাকে দেখাশোনা করার কথা বলে তার কাছে বেশ কিছুদিন রাখেছিলেন। এসময় মায়ের নামে ছিল মাদারীপুর শহরের একটি বাড়ির জমি সেই জমি স্বপন তার নামে লিখে নিয়েছেন । এছাড়াও তার বড় সন্তান সৈয়দ জানে আলম তার জমি বিক্রির ব্যাংকে থাকা টাকা আত্মসাৎ করছেন।

  
বৃদ্ধা মায়ের অভিযোগ- বড় সন্তান ও তার স্ত্রী সম্পত্তি ও টাকা পয়সা হাতিয়ে নিওয়ার পরে তিনদিন খাবার না দিয়ে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছেন। তিনি আরো অভিযোগ করেন- একাধিকবার তাকে নির্যাতন করা হয়।এই ঘটনায় বৃদ্ধা মাদারীপুর চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা করেছেন। তার সাথে প্রতারণা করে সম্পত্তি ও টাকা পয়সা হাতিয়ে নেয় এ মামলায় অভিযোগ করেন । বড় সন্তান সৈয়দ জানে আলম স্বপন ও তার স্ত্রী কাজী শিবলী আক্তার রুমা এবং তার নাতনী সৈয়দ রাহুল আলম শুভকে মামলায় আসামি করা হয়েছে । মামলার অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে- সৈয়দা শান্তি নাহার নামে ওই বৃদ্ধার স্বামী বছর তিনেক আগে মারা গেলে ওয়ারিশ হিসেবে রেখে যান -তিন সন্তান এক মেয়ে। স্বামীর মৃত্যুর পরে চিকিৎসার জন্য মাদারীপুর শহরে বৃদ্ধা তার বড় ছেলের বাড়িতে থাকেন। নগদ টাকার প্রয়োজন থাকার কারণে ৫২ লক্ষ টাকার জমি বিক্রি করে দেন। সেই টাকা গচ্ছিত রেখেছেন বড় সন্তানের কাছে।

  

কিছুদিন পরে সে অসুস্থবোধ করলে চিকিৎসা করা হবে বলে তার বড় সন্তান স্বপন ও তার স্ত্রী রুমা এবং তার সন্তান শুভ অজ্ঞাত একটি বিল্ডিং ঘরে নিয়ে গিয়ে তাকে হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করতে হবে জানিয়ে কিছু প্রয়োজনীয় কিছু কাগজ পত্র সই করিয়ে নেয়। এর কিছুদিন পরে সে জানতে পারেন তার বাড়ির তিন শতাংশ জমি হেবা দলিলের মাধ্যমে বড় সন্তান জানে আলম নিজের নামে লিখে নিয়েছেন। এছাড়াও বিভিন্ন স্থানের তার একাধিক সম্পত্তি প্রতারণার মাধ্যমে অন্যদের নামে দলিল করিয়ে নেন। বিষয়টি জানার পরে তার বড় ছেলের কাছে জমি বিক্রির টাকাসহ মোট ৭১ লক্ষ টাকা এবং তিন শতাংশ জমি ফেরত চাওয়ার পরে তিনি টাকা ও জমি ফেরত দিতে অস্বীকার করেন। একপর্যায় মামলা করা হুমকি দিলে এসময়ে সৈয়দ জানে আলম স্বপন বৃদ্ধা শান্তি নাহারকে এলোপাতাড়ি কিল ঘুসি ও লাথি মেরে পরে ঘর থেকে বের করে দেয়। ঘটনার পরে তার মেজ ছেলে সৈয়দ মুক্তি তার মাকে উদ্ধার করে চিকিৎসা করেন।

  
ভুক্তভোগী সৈয়দা শান্তি নাহার বলেন, প্রতারণার মাধ্যমে আমার ছেরে সৈয়দ জানে আলম ও তার স্ত্রী কাজী শিবলী আক্তার রুমা জায়গাজমি অর্থ সম্পদ আত্মাসাৎ করে, আমাকে মারধর করে ঘর থেকে বের করে দিয়েছে। এমন কুলাঙ্গার সন্তান আমার দরকার নেই। আমি এর সুষ্ঠু বিচার সরকারের কাছে চাই। নির্যাতেনর
শিকার বৃদ্ধার দেবর মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দ আলমগীরর জানান- আমার ভাতিজা স্বপন আমার সামনে ওর মাকে মারধর করেছে। এমন কুলাঙ্গার সন্তান আমি জীবনে দেখিনি। ওর দৃষ্টান্তমূলক বিচার হওয়ার উচিত। যাতে কেউ মায়ের গায়ে হাত তুলতে না পারে।

  
এ বিষয়ে অভিযুক্ত সৈয়দ জানে আলম স্বপন বলেন- এ ঘটনা সম্পূর্ণ মিথ্যা ও বানোনো বানোয়াট। আমার মা মিথ্যা কথা বলছে। জমি বিক্রি করে তার টাকা তাকে দেওয়া হয়েছে। সে তার টাকা তুলে সে চিকিৎসার জন্য খরচ করছে। তার জমির বিক্রির বাকী টাকা তার একাউন্টেই আছে। ডাসার থানার ওসি শফিকুল ইসলাম জানান, বৃদ্ধা মাকে পুলিশের পক্ষ থেকে আইনি সহায়তা দেওয়া হবে। এব্যপারে ডাসারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার কানিজ আফরোজ বলেন- ঘটনাটি খুবই দুঃখজনক। মাকে তার সন্তান মারধর করবে এটা সভ্য সমাজে মেনে নেওয়ার মত নয়। অভিযুক্ত সন্তানের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ দেয়া হবে।